Technology

3 weeks ago

Smartphone Radiation: স্মার্টফোনের রেডিয়েশন এতটাই বিপজ্জনক! অবশ্যই জেনে রাখুন এর থেকে বাঁচার উপায়

Smartphone Radiation
Smartphone Radiation

 

দুরন্ত বার্তা ডিজিটাল ডেস্কঃবর্তমান যুগে স্মার্টফোন আমাদের প্রয়োজনীয়তা হয়ে দাঁড়িয়েছে। একদিকে যেমন এর অনেক সুবিধা আছে, অন্যদিকে এর কিছু অসুবিধাও রয়েছে। মোবাইল ফোন থেকে নির্গত রেডিয়েশনকে মারাত্মক বলা হয়।

জেনে নিন কী কী ক্ষতি হতে পারে-

- প্রতিদিন ৫০ মিনিট একটানা মোবাইল ব্যবহার করলে মস্তিষ্কের কোষের ক্ষতি হতে পারে।

মোবাইল ফোনের রেডিয়েশন থেকেও ক্যান্সার হতে পারে

রোগের কোনও সুনির্দিষ্ট প্রমাণ নেই-

প্রায়ই এমন খবর বেরিয়ে আসে যেখানে বলা হয় মোবাইল ফোনের কারণে ক্যান্সার বা ব্রেন টিউমার ইত্যাদি মারাত্মক রোগ হতে পারে। তবে বিশেষজ্ঞদের মতে, এখন পর্যন্ত কোনও গবেষণায় প্রমাণিত হয়নি যে মোবাইল রেডিয়েশনের কারণে কোনও ব্যক্তির ক্যান্সার বা ব্রেন টিউমার বা অন্য কোনও মারাত্মক রোগ হয়েছে। নির্ধারিত সীমার (1.6 W/kg) বেশি বিকিরণ নির্গত করে এমন ফোন ব্যবহার না করাই ভালো।

নিজেকে এভাবে রক্ষা করুন-

১) শরীর থেকে দূরে রাখুন-

শরীরের সঙ্গে মোবাইল ফোনের যোগাযোগ কম করার চেষ্টা করুন। ফোন কখনই শার্ট বা টি-শার্টের পকেটে রাখবেন না। তবে প্যান্টের পকেটে ফোন রাখাও ঠিক নয়। ব্যাগে রাখলে ভালো হয়।

২) ল্যান্ডলাইনের অত্যধিক ব্যবহার-

আপনি যদি অফিসে কাজ করেন, তাহলে আপনার ডেস্কে মোবাইল রাখুন এবং কথা বলার জন্য ল্যান্ডলাইন ব্যবহার করুন। বাড়িতেল্যান্ডলাইন ফোন থাকলে তা বেশি করে ব্যবহার করুন।

৩) ব্যবহার না করার সময় বন্ধ করুন-

এই পদ্ধতিটি ব্যবহার করা সম্পূর্ণরূপে সবার নাগালের মধ্যে নয়, তবে এটি যতটা সম্ভব করা উচিত। রাতে ঘুমানোর সময় মোবাইল বন্ধকরে রাখতে পারেন।

৪) স্পিকারে কথা বলুন-

কথোপকথনের জন্য হ্যান্ডস ফ্রি স্পিকার বা ইয়ার ফোন ব্যবহার করা ভাল। কথোপকথন শেষ হওয়ার পরে, কান থেকে ইয়ারফোনটি সরয়ে ফেলুন। আপনি যদি হ্যান্ডস-ফ্রি স্পিকার ব্যবহার করতে না চান, তাহলে ফোনটি কান থেকে প্রায় ১-২ সেন্টিমিটার দূরে রেখে কথাবলুন।

৫) হোয়াটসঅ্যাপ বা মেসেজ ব্যবহার করুন-

ছোটখাটো বিষয়ে কল করার পরিবর্তে হোয়াটসঅ্যাপ বা মেসেজ ব্যবহার করা ভালো হবে।

এই ধরনের পরিস্থিতি এড়িয়ে চলুন-

চার্জ করার সময় মোবাইলে কথা বলবেন না কারণ এমন অবস্থায় মোবাইল থেকে নির্গত রেডিয়েশনের মাত্রা ১০ গুণ পর্যন্ত বেড়ে যায়। মোবাইলের সিগন্যাল দুর্বল এবং ব্যাটারি খুব কম থাকলেও ব্যবহার করবেন না, কারণ এমন ক্ষেত্রেও রেডিয়েশন বেড়ে যায়।

প্রসঙ্গতঃ- সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছিল। সোনালি রঙের চিপ দিয়ে মোবাইল থেকে নির্গত রেডিয়েশন শূন্যে নামিয়ে আনা যায় বলে দাবি করা হয়েছিল। এতে একটি ডেমোও দেখানো হচ্ছিল। ভিডিও অনুসারে, একটি মিটার মোবাইল থেকে নির্গত রেডিয়েশন রিড করছিল। চিপ মোবাইল আনা হলে রিডিং কমে যায় এবং এমন পরিস্থিতি আসে যখন রিডিং শূন্য হয়ে যায়। তবে কিছু বিশেষজ্ঞের মতে, মোবাইল থেকে নির্গত রেডিয়েশন জিরো করা সম্ভব নয় কারণ রেডিয়েশন শূন্য হলে মোবাইল সিগন্যাল কাজ করা বন্ধ করে দেবে। এমন পরিস্থিতিতে এই ভিডিওতে যে দাবি করা হয়েছে তা সম্পূর্ণ ভুল।

প্রতারণা এড়িয়ে চলুন: বিশেষজ্ঞদের মতে, কেউ যদি আপনাকে বলে যে মোবাইল থেকে নির্গত রেডিয়েশন মোবাইলের কভার বা চিপ বা অন্যান্য জিনিসের সাহায্যে কমানো বা নির্মূল করা যায়, তাহলে বিশ্বাস করবেন না। এটি আপনার পকেট থেকে টাকা নেওয়ার একটি উপায় হতে পারে।

You might also like!