Country

2 weeks ago

Ashwini Vaishnaw:অত্যাধুনিক বুলেট ট্রেনের ঝলক দেখালেন রেলমন্ত্রী, উপহার পাবে কলকাতাও!

Ashwini Vaishnaw
Ashwini Vaishnaw

 

দুরন্ত বার্তা ডিজিটাল ডেস্কঃ  আমদাবাদ থেকে মুম্বই রুটে ছুটবে ভারতের প্রথম বুলেট ট্রেন। এছাড়াও দেশের আরও একাধিক রুটে বুলেট ট্রেন চালুর পরিকল্পনা রয়েছে রেলের। এই আবহে সোশ্যাল মিডিয়ায় বুলেট ট্রেনের ঝলক দেখালেন রেলমন্ত্রী অশ্বিনী বৈষ্ণব। কেবল মুম্বই-আহমেদাবাদ রুটে নয়, কলকাতাতেও ছুটবে বিশ্বমানের প্রযুক্তিতে নির্মিত এই ট্রেন। রেলমন্ত্রী অশ্বিনী বৈষ্ণব ইতিমধ্যে বুলেট ট্রেনের জন্য ৩টি গোল্ডেন রুটের রূপরেখা স্থির করেছেন। যার মধ্যে রয়েছে তিলোত্তমা। এমনকি হাওড়া স্টেশনের উপর দিয়েও বুলেট ট্রেন নিয়ে যাওয়ার পরিকল্পনা রয়েছে রেলের। বিশ্বমানের প্রযুক্তি-নির্ভর বুলেট ট্রেন যেমন বুলেটের গতিতে ছুটবে, তেমনই ট্রেনটি দেখতেও হবে বিদেশি ট্রেনের মতো। যা দেখলে ভারতীয় ট্রেন বলে মনে হবে না এটি। সোমবারই বুলেট ট্রেনের একটি ভিডিয়ো শেয়ার করেছেন রেলমন্ত্রী অশ্বিনী বৈষ্ণব।

রেলমন্ত্রী অশ্বিনী বৈষ্ণব বুলেট ট্রেনের একটি ভিডিয়ো নিজের টুইটার হ্যান্ডেলে পোস্ট করেছেন। যেখানে দেখা যাচ্ছে, মেরুন-সাদা রঙের ট্রেনটি দেখতে অবিকল বিদেশি ট্রেনের মতো। এর গতি প্রাথমিকভাবে এটি মুম্বই-আহমেদাবাদ রুটে চালু হচ্ছে। মাত্র ২ ঘণ্টাতেই ৫০৮ কিলোমিটার পৌঁছে যাবে এই ট্রেন। ট্রেনের প্রাথমিক গতি ঘণ্টায় ৩২০ কিলোমিটার। বুলেট ট্রেনের জন্য আলাদা করিডর করা হচ্ছে। যা ২৪টি নদী সেতু, ২৮টি স্টিল ব্রিজ ও ৭টি সুড়ঙ্গের মধ্য দিয়ে যাবে।

বুলেট ট্রেন মার্বেল অফ ওয়ার্ল্ড ক্লাস ইঞ্জিনিয়ারিং এবং ভবিষ্যৎ ভারতের দৃষ্টান্ত বলেও ভিডিয়োতে উল্লেখ করেছেন রেলমন্ত্রী অশ্বিনী বৈষ্ণব। তিনি ভিডিয়োটির শিরোনামে লিখেছেন, “আমরা স্বপ্নকে বাস্তব পরিণত করি। মোদী-৩.০ জমানা.য় আসছে বুলেট ট্রেন।”

প্রাথমিকভাবে মুম্বই-আহমেদাবাদ বুলেট ট্রেন চালু হলেও আরও ৩টি গোল্ডেন রুটের রূপরেখা স্থির করেছেন রেলমন্ত্রী অশ্বিনী বৈষ্ণব। এই তিনটি রুটের মধ্যে রয়েছে, ১,৪৭৪ কিমি দীর্ঘ দিল্লি-কলকাতা, ১,৪০২ কিমি দীর্ঘ দিল্লি-মুম্বই এবং ১,৩১৭ কিমি দীর্ঘ মুম্বই-চেন্নাই। বলা যায়, মুম্বই-আহমেদাবাদের সঙ্গে আরও এই তিনটি রুট জুড়ে বুলেট ট্রেনের মাধ্যমে দেশকে চতুর্ভুজের মাধ্যমে জুড়তে তৎপর রেলমন্ত্রী অশ্বিনী বৈষ্ণব।

দেশের প্রধান শহরগুলিকে গোল্ডেন চতুর্ভুজ বুলেট রুটের মধ্যে বাঁধার পাশাপাশি অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ শহরগুলিতেও দ্রুত গতির এই ট্রেন চালু করার পরিকল্পনা রয়েছে রেলমন্ত্রীর। এখনও পর্যন্ত মোট ৭টি রুটের উপর সমীক্ষা হয়েছে। এই রুটগুলি হল, দিল্লি-বারাণসী (৮১৩ কিমি), দিল্লি-আহমেদাবাদ (৮৭৮ কিমি), মুম্বই-নাগপুর (৭৬৮ কিমি), মুম্বই-হায়দরাবাদ (৬৭১ কিমি), চেন্নাই-বেঙ্গালুরু-মহীশূর (প্রায়. ৪৩৫ কিমি), দিল্লি-চণ্ডীগঢ়-অমৃতসর (৪৫৯ কিমি) এবং বারাণসী-হাওড়া (প্রায় ৭৬০ কিমি)।


You might also like!