Country

3 weeks ago

Jharkhand Political Crisis:হেমন্তের আর্জিতে ইডি-র প্রতিক্রিয়া জানতে চাইল ঝাড়খণ্ড হাইকোর্ট

Former Chief Minister of Jharkhand Hemant Soren
Former Chief Minister of Jharkhand Hemant Soren

 

দুরন্ত বার্তা ডিজিটাল ডেস্কঃসুপ্রিম কোর্টে ধাক্কা খাওয়ার পর গ্রেফতারিকে চ্যালেঞ্জ করে ঝাড়খণ্ড হাইকোর্টের দ্বারস্থ হন ঝাড়খণ্ডের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী তথা ঝাড়খণ্ড মুক্তি মোর্চার কার্যকরী সভাপতি হেমন্ত সোরেন। ইডি-র গ্রেফতারিকে চ্যালেঞ্জ করে তিনি ঝাড়খণ্ড হাইকোর্টের দ্বারস্থ হন, হেমন্তের আবেদনের প্রেক্ষিতে এবার ইডি-র প্রতিক্রিয়া জানতে চাইল ঝাড়খণ্ড হাইকোর্ট। এ বিষয়ে পরবর্তী শুনানি হবে আগামী ১২ ফেব্রুয়ারি।

নিজের গ্রেফতারিকে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে প্রথমে ঝাড়খণ্ড হাই কোর্টের দ্বারস্থ হলেও পরে তা প্রত্যাহার করে সরাসরি সুপ্রিম কোর্টে মামলা করেছিলেন হেমন্ত। সেখান থেকে মামলা হাই কোর্টে ফিরিয়ে দেওয়া হয়েছে। শীর্ষ আদালত জানিয়েছে, আগে উচ্চ আদালতে আবেদন জানাতে হবে হেমন্তকে। তারা উচ্চ আদালতের সাংবিধানিক ক্ষমতায় হস্তক্ষেপ করবে না। তার পর মামলা আবার ঝাড়খণ্ড হাই কোর্টে ফেরত আসে। সোমবার সেই মামলার শুনানি ছিল। আদালত ইডির কাছ থেকে রিপোর্ট তলব করেছে।

গ্রেফতারির সময়ে হেমন্ত ইডির বিরুদ্ধে হেনস্থা এবং আদিবাসী সম্প্রদায়কে অপমানের অভিযোগ এনে একটি এফআইআর করেছিলেন। সেই এফআইআরকে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে ঝাড়খণ্ড হাই কোর্টে পাল্টা একটি মামলা করেছে ইডি। তফসিলি জাতি উপজাতি আইনে গত ৩ ফেব্রুয়ারি মামলাটি করা হয়েছে রাজ্যের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে।

জমি জালিয়াতি মামলায় গত বুধবার প্রায় সাত ঘণ্টা হেমন্তের রাঁচীর বাসভবনে তল্লাশি চালায় ইডি। রাতে তাঁকে গ্রেফতার করা হয়। তার আগেই রাজভবনে গিয়ে হেমন্ত ইস্তফা দেন মুখ্যমন্ত্রীর পদ থেকে। তার পর শুক্রবার মুখ্যমন্ত্রী পদে শপথ গ্রহণ করেন চম্পই সোরেন।

শপথ গ্রহণের পর রাজ্যপাল ১০ দিনের মধ্যে চম্পই সরকারের সংখ্যাগরিষ্ঠতার প্রমাণ দিতে বলেছিলেন। সেই অনুযায়ী সোমবার ঝাড়খণ্ড বিধানসভায় আস্থা ভোট গ্রহণের প্রক্রিয়া চলছে। আস্থা ভোটে সংখ্যাগরিষ্ঠতা পেলে চম্পইয়ের সরকার স্থায়ী হবে।


You might also like!